India vs England 2021: ফের ব্যাটিং ব্যর্থতার দিনে ভারতের সব থেকে বড় প্রাপ্তি রুটের উইকেট

Loading...

লিডসের পর ওভাল। ভারতের ব্যাটিং ব্যর্থতা অব্যাহত। বৃহস্পতিবার চতুর্থ টেস্টের প্রথম ইনিংসে দুশোও তুলতে পারল না বিরাট কোহলীর ভারত। শেষ হয়ে গেল ১৯১ রানে। শেষ বেলায় শার্দূল ঠাকুর দাপুটে ইনিংস না খেললে এই রানও উঠত কি না সন্দেহ।

টসে হেরেছিলেন বিরাট কোহলী। আবারও ব্যর্থ হলেন ভারতের দুই ওপেনার। শুরুটা মোটামুটি ভাল হলেও রোহিত শর্মা ফিরে গেলেন মাত্র ১১ রান করে। তারপরেই আউট আর এক ওপেনার কেএল রাহুল। ২৮ রানে পরপর দু’টি উইকেট পড়ে গেল ভারতের। আগের ম্যাচে রানে ফেরায় মনে করা হয়েছিল চেতেশ্বর পুজারা ফর্মে ফিরেছেন। কিন্তু ওভালে এসে তিনিও ব্যর্থ। মাত্র চার রানে সেই অফ স্টাম্পের বাইরের বলে খোঁচা দিয়ে ফিরে গেলেন সৌরাষ্ট্রের ব্যাটসম্যান।

Loading...

পুজারা সাজঘরে ফিরতেই হঠাৎ চমক। অজিঙ্ক রহাণে নয়, ব্যাট হাতে নামতে দেখা গেল রবীন্দ্র জাডেজাকে। ক্রিকেট অনুরাগীরা তো বটেই, অবাক হয়ে গিয়েছিলেন ধারাভাষ্যকাররাও। অনেকেই বললেন, বাঁ হাতি এবং ডান হাতি কম্বিনেশনের জন্যেই এই বদল। কিন্তু সেই ফাটকা কাজে লাগল না। ১০ রানের বেশি করতে পারলেন না জাডেজা।

কোহলী অবশ্য নিজের ছন্দেই এগোচ্ছিলেন। অলি রবিনসন, জেমস অ্যান্ডারসনকে দর্শনীয় কভার ড্রাইভ মারলেন। অনুরাগীরা যখন স্বপ্ন দেখতে শুরু করেছেন কোহলীর শতরানের, তখনই এল বিপদ। রবিনসনের বলে খোঁচা দিয়ে ফিরলেন কোহলী। রহাণে, পন্থও দাগ কাটতে ব্যর্থ।

Loading...

মহম্মদ শামির জায়গায় এই টেস্টে নেওয়া হয়েছে শার্দূল ঠাকুরকে। কিন্তু বলের আগে তিনি নিজের অস্তিত্ব জানান দিয়ে রাখলেন ব্যাটে। এর আগে অস্ট্রেলিয়া সিরিজে অর্ধশতরান করেছিলেন তিনি। বৃহস্পতিবার কোনও ইংরেজ বোলারকেই রেয়াত করেননি। অবলীলায় ছক্কা হাঁকিয়েছেন। অর্ধশতরানও পূর্ণ করেন ছয় দিয়েই। তবে দ্রুত রান তুলতে গিয়ে ঝুঁকি নেওয়াই কাল হল তাঁর।

ভারতের পক্ষে আশার কথা, প্রথম দিনেই ফেরানো গিয়েছে এই সিরিজে চূড়ান্ত ছন্দে থাকা জো রুটকে। ৬ রানের মধ্যে যশপ্রীত বুমরা দুই ওপেনারকে ফেরত পাঠানোর পর সিরিজে প্রথম সুযোগ পাওয়া উমেশ যাদব তুলে নেন রুটের। প্রথম দিনের ভারতের সব থেকে বড় প্রাপ্তি এটাই। আপাতত দাভিদ মালানের (২৬) সঙ্গে ক্রিজে রয়েছেন নাইট ওয়াচম্যান ক্রেগ ওভার্টন (১)।

Loading...
Loading...
Share

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *